SEND FEEDBACK

English
Bengali

ইচ্ছেপুরণ করতে গিয়ে নাম উঠল লিমকা বুক অফ রেকর্ডস-এ

নিজস্ব প্রতিবেদন, এবেলা.ইন | মার্চ ২০, ২০১৭
Share it on
২০১৫ সালে, নালন্দা ওপেন ইউনিভারসিটি-তে ভর্তি হন বর্ষীয়ান রাজকুমার।

বয়সের ভারে ন্যুব্জ তাঁর দেহ। কিন্তু, মন এখনও তরতাজা। এবং অত্যন্ত দৃ‌ঢ় তাঁর মানসিকতা।

উত্তরপ্রদেশের বরেলির বাসিন্দা রাজকুমার বৈশ্য। বয়স ৯৭ বছর। ১৯৩৮ সালে, আগ্রা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইকনমিকস নিয়ে স্নাতক হন তিনি। এর পরে, ১৯৪০ সালে আইন পাস করেন। কিন্তু, পরিবারের দায়িত্ব সামলাতে গিয়ে মাস্টার্স ডিগ্রি পর্যন্ত পৌঁছতে পারেননি রাজকুমার।

কালের নিয়মেই তার পরে চাকরি, সংসার সামলে রাজকুমার কর্মজীবন থেকে অবসর নেন ১৯৮০ সালে। গত ১০ বছর ধরে ছোট ছেলে সন্তোষকুমারের সঙ্গে থাকেন ঝাড়খণ্ডের রাজেন্দ্র নগরে। 

আরও পড়ুন... 

খালি হাতে কতগুলো নারকেল ভাঙতে পারলে বিশ্ব রেকর্ড করা যায়, জেনে নিন 

অবসরের পরেও রেকর্ড গড়ে যাচ্ছেন। কীভাবে? জানতে পড়ুন

২০১৫ সালে, নালন্দা ওপেন ইউনিভারসিটি-তে ভর্তি হন বর্ষীয়ান রাজকুমার। ইকনমিকস-এ এমএ ডিগ্রিটা যে তাঁর চাই-ই চাই। এবং এই স্বপ্নপূরণের ইচ্ছেটাই তাঁর নাম লিমকা বুক অফ রেকর্ডস-এ জায়গা করে দেয়। এই মুহূর্তে তিনি এদেশের সবথেকে বেশি বয়সি ছাত্র।

মস্তিষ্কে সংখ্যা স্মরণ করে রাখাই এই মহিলার শখ, দেখুন এমন এখ ভিডিও স্টোরি, ক্লিক করুন নিচে...

Raj Kumar Vaishya Limca Book of Records Nalanda Open University
Share it on
আরও যা আছে
আরও খবর
ওয়েবসাইটে আরও যা আছে
আরও খবর
আমাদের অন্যান্য প্রকাশনাগুলি -