SEND FEEDBACK

English
Bengali

ভারতীয় বংশোদ্ভূতদের ওসিআই কার্ড বানাতে হবে জুনের মধ্যে, জানালেন মোদী

নিজস্ব প্রতিবেদন, এবেলা.ইন | জানুয়ারি ৮, ২০১৭
Share it on
ভারতীয় বংশোদ্ভূতদের জন্য যে ‘পার্সনস অব ইন্ডিয়ান অরিজিন’ কার্ড বা পিআইও কার্ড রয়েছে, সেই কার্ডকে এ বার ‘ওভারসিজ সিটিজেনস অব ইন্ডিয়া’ কার্ড বা ওসিআই কার্ডে বদলে নেওয়ার জন্য প্রবাসী ভারতীয় সম্মেলনে যোগদানকারী প্রতিনিধিদের আহ্বান জানিয়েছেন মোদী।

ভারতীয় বংশোদ্ভূতরা পৃথিবীর যে প্রান্তেই বাস করুন, যে কোনও প্রয়োজনে ভারত তাঁর পাশে থাকবে। বেঙ্গালুরুতে প্রবাসী ভারতীয় সম্মেলনে এমনই বার্তা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর। সেই মঞ্চ থেকেই প্রধানমন্ত্রী এ দিন নোট বাতিল নিয়েও মুখ খুলেছেন। তিনি বলেন, ‘দুর্নীতি এবং কালো টাকা ভারতকে ভিতরে ভিতরে ধ্বংস করে দিচ্ছিল। এ বিষয়ে একটা অবস্থান নিতেই হত এবং তা আমরা নিয়েছি।’ বিরোধীদের বিঁধে নরেন্দ্র মোদী বলেন, ‘দুর্ভাগ্যজনক ভাবে কিছু কালো টাকার ভক্ত আমাদের পদক্ষেপকে জনবিরোধী বলেছেল। কিন্তু এই পদক্ষেপকে প্রবাসী ভারতীয়রা সমর্থন করেছেন’।

এ দিন তিনি বলেন, ‘৩ কোটি প্রবাসী ভারতীয় রয়েছেন। তাঁরা যে শুধুমাত্র তাঁদের সংখ্যার কারণে সমীহ পান, তা নয়। নিজেদের অবদানের জন্য তাঁরা সমীহ আদায় করে নেন।’ এর পরেই ভারতীয়

বংশোদ্ভূতদের জন্য যে ‘পার্সনস অব ইন্ডিয়ান অরিজিন’ কার্ড বা পিআইও কার্ড রয়েছে, তা বদলে ‘ওভারসিজ সিটিজেনস অব ইন্ডিয়া’ কার্ড বা ওসিআই কার্ডে বদলে নেওয়ার জন্য আহ্বান জানান মোদী। ২০১৬-র ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত কার্ড বদলের সময়সীমা ধার্য করা হয়েছিল। প্রধানমন্ত্রী এ দিন জানিয়েছেন সেই সময়সীমা বাড়িয়ে ৩০ জুন, ২০১৭ করা হচ্ছে। এখনও যাঁরা পিআইও কার্ডকে। তবে এর জন্য কোনও জরিমানা দিতে হবে না। 

বেঙ্গালুরুতে মোদী বলেন, ‘বিদেশে কোনও ভারতীয় যখনই সঙ্কটে পড়েছেন, তখনই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে বিদেশ মন্ত্রী সুষমা স্বরাজ তাঁদের সঙ্গে দ্রুত যোগাযোগ স্থাপন করেন। আপনার কাছে যে কোনও দেশের পাসপোর্ট থাকতে পারে, কিন্তু যদি আপনি একজন ভারতীয় হন, আমরা সর্বদা আপনার পাশে আছি। আপনার পাসপোর্টের রংটা কী, সেটা আমরা দেখি না। আমরা রক্তের সম্পর্কটা দেখি।’

narendra modi passport
Share it on
আরও যা আছে
আরও খবর
ওয়েবসাইটে আরও যা আছে
আরও খবর
আমাদের অন্যান্য প্রকাশনাগুলি -