SEND FEEDBACK

English
Bengali

সিপিএমপ্রার্থী শতরূপের বাড়িতে হামলা। অভিযুক্ত তৃণমূল

নিজস্ব সংবাদদাতা | মে ২৩, ২০১৬
Share it on
কসবা কেন্দ্রে এবার সাড়ে ১১ হাজারের কিছু বেশি ভোটে তৃণমূলের জাভেদ খানের কাছে পরাজিত হয়েছেন শতরূপ। ২০১১ সালের নির্বাচনে জাভেদের জয়ের ব্যবধান ছিল প্রায় ২০ হাজার।

কসবা কেন্দ্রের সিপিএমপ্রার্থী শতরূপ ঘোষের বাড়িতে হামলা চালানোর অভিযোগ উঠল তৃণমূলের বিরুদ্ধে। অভিযোগ, শনিবার রাত দেড়টা নাগাদ শতরূপের বাড়ির গেটের তালা ভাঙে দুষ্কৃতীরা। তারপর বাড়ি লক্ষ্য করে ইট ছোড়ে। 

শতরূপ বলেন, ‘‘রাত দেড়টা নাগাদ বাড়ির জানলায় ইট ছোড়ে দুষ্কৃতীরা। আমি দোতলার বারান্দায় বেরিয়ে আসতেই ওরা পালিয়ে যায়। নীচে এসে দেখি, ওরা বাড়িতে ঢোকার গেটের তালা ভেঙেছে। এদিকে ওদিকে ছড়িয়ে রয়েছে ইটের টুকরো।’’ কসবা থানায় ফোন করে ঘটনাটি জানান সিপিএমপ্রার্থী। তাঁর অভিযোগ, ‘‘পুলিশ অফিসারদের কথা শুনে আমি অবাক হয়ে যাচ্ছি! ওসি বলছেন, পুলিশ ঘটনার পরই গিয়েছিল। কিন্তু কাউকে দেখতে পায়নি। আমি তখন বলি, দুষ্কৃতীরা কি পুলিশের জন্য অপেক্ষা করবে?’’ 

কসবা কেন্দ্রে এবার সাড়ে ১১ হাজারের কিছু বেশি ভোটে তৃণমূলের জাভেদ খানের কাছে পরাজিত হয়েছেন শতরূপ। ২০১১ সালের নির্বাচনে জাভেদের জয়ের ব্যবধান ছিল প্রায় ২০ হাজার। সেবার কসবা বিধানসভার অন্তর্গত ছ’টি ওয়ার্ডেই সিপিএমের চেয়ে বেশি ভোট পেয়েছিল তৃণমূল। এবার পাঁচটি ওয়ার্ডে তৃণমূলের চেয়ে এগিয়ে রয়েছেন শতরূপ। শুধু ৬৬ নম্বর ওয়ার্ডেই সিপিএমের চেয়ে সাড়ে ২২ হাজারের বেশি ভোট পাওয়ায় জিতে যান জাভেদ। শতরূপের অভিযোগ, ‘‘পাঁচটি ওয়ার্ড হাতছাড়া হয়েছে শাসকদলের। তাই মরিয়া হয়ে কসবা জুড়ে আক্রমণ শুরু করছে তৃণমূল। সৌমেন মিত্রকে কলকাতার পুলিশ কমিশনারের পদ থেকে সরিয়ে মুখ্যমন্ত্রী একজন দলদাসকে ওই পদে এনেছেন। আক্রমণ হলেও যে অপরাধীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে না, তা সহজেই বোঝা যাচ্ছে।’’ জাভেদের সঙ্গে বারবার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তাঁর ফোন বেজে গিয়েছে। 

কসবার থানার ওসি শুভাশিস ভট্টাচার্য জানান, শনিবার রাতে মোটরসাইকেল নিয়ে যাওয়ার সময় কয়েকজন শতরূপের বাড়িতে ইট ছোড়ে এবং গেটের তালা ভাঙার চেষ্টা করে। ওই ঘটনায় কাউকে গ্রেফতার করা যায়নি বলে জানান তিনি। তাঁর দাবি, ওই ঘটনায় কোনও লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়নি। যদিও শতরূপের দাবি, নির্দিষ্ট কয়েকজনের নামে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। 

Cpm Tmc Kasba Shatarup Ghosh
Share it on
আরও যা আছে
আরও খবর
ওয়েবসাইটে আরও যা আছে
আরও খবর
আমাদের অন্যান্য প্রকাশনাগুলি -