SEND FEEDBACK

English
Bengali

রাহুল নন, বিরোধী নেত্রী হিসাবে চিদম্বরমের পছন্দ মমতা

নিজস্ব সংবাদদাতা | মার্চ ১৯, ২০১৭
Share it on
প্রাক্তন কেন্দ্রীয়মন্ত্রী তথা কংগ্রেস নেতা পি চিদম্বরমের পছন্দসই ‘নির্ভীক বিরোধী নেতা’র তালিকায় নেই রাহুল গাঁধীর নাম। বরং সেই ভূমিকায় তাঁর বেশি পছন্দ তৃণমূলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে।

প্রাক্তন কেন্দ্রীয়মন্ত্রী তথা কংগ্রেস নেতা পি চিদম্বরমের পছন্দসই ‘নির্ভীক বিরোধী নেতা’র তালিকায় নেই রাহুল গাঁধীর নাম। বরং সেই ভূমিকায় তাঁর বেশি পছন্দ তৃণমূলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে।  পছন্দ ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি ও সদ্য প্রয়াত এডিএমকে নেত্রী তথা তামিলনাড়ুর প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী জয়ললিতাকেও। 
শনিবার শহরে এক অনুষ্ঠানে রাজ্যসভায় তৃণমূলের সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েনের প্রশ্নের জবাবে নিজের এই মত প্রকাশ করেছেন কংগ্রেসের ওই প্রবীণ নেতা। কথোপকথনে জড়িয়ে পড়েছেন পারস্পরিক কটাক্ষেও। 
চিদম্বরমের এই মত প্রকাশের উপলক্ষ ছিল তাঁর লেখা বই ‘ফিয়ারলেস ইন অপোজিশন— পাওয়ার অ্যান্ড অ্যাকাউন্টেবিলিটি’র প্রকাশ অনুষ্ঠান। এদিন সেন্ট জেভিয়ার্স কলেজে ওই অনুষ্ঠানের শুরুতেই তৃণমূল সাংসদ জানতে চান, নোটবাতিলের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নামতে কেন কালক্ষেপ করছে কংগ্রেস। প্রশ্ন করেন, ‘‘৪৪ জন লোকসভা সাংসদ এবং ৪০ জনের বেশি রাজ্যসভা সাংসদ নিয়েও নোটবাতিলের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নামতে কংগ্রেসের এত সময় লাগল কেন?’’ এর পরেই ডেরেক বলেন, ‘‘তৃণমূলে কে সিদ্ধান্ত নেন তা সকলেই জানেন। আপনার দলে কে সিদ্ধান্ত নেন?’’ জবাবে চিদম্বরম বলেন, ‘‘একবারও বলছি না তৃণমূল কম গণতান্ত্রিক দল।” তার পরেই নোটবাতিল নিয়ে তিনি নিজে সরকারি সিদ্ধান্ত ঘোষণার পরদিনই কী পদক্ষেপ করেছিলেন তা জানান। 
আলোচনায় তৃণমূল সাংসদ চিদম্বরমকে মনে করিয়ে দেন, তাঁর নিজের রাজ্য তামিলনাড়ুতেই কীভাবে কোণঠাসা হয়েছে কংগ্রেস। প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর জবাবি কটাক্ষ, ‘‘জাতীয় দল হওয়ার উচ্চাকাঙ্খা তৃণমূলের থাকতেই পারে। তবে সেজন্য তৃণমূল নেতাদের তেলুগু শিখতে হবে।’’ 

P. Chidambaram Mamata Banerjee
Share it on
আরও যা আছে
আরও খবর
ওয়েবসাইটে আরও যা আছে
আরও খবর
আমাদের অন্যান্য প্রকাশনাগুলি -