SEND FEEDBACK

English
Bengali

জনগণের থেকে দূরে সরে যাচ্ছেন? মমতার নির্দেশে বিভ্রান্ত কর্মীরা

নিজস্ব প্রতিবেদন, এবেলা.ইন | জানুয়ারি ৯, ২০১৭
Share it on
মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বরাবরই মানুষের সুখ দুঃখের সঙ্গী। তৃণমূলের এমন দাবি কী হঠাৎ ফিকে হয়ে যাচ্ছে?

৮ নভেম্বর নোটবাতিলের পরে প্রথম প্রতিবাদ করেছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সাধারণ মানুষের দুর্ভোগের কথা তুলে নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে সুর চড়ান তৃণমূল নেত্রী। জনবিরোধী সরকারি সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে প্রতিবাদের ঝড় তোলেন কলকাতা থেকে দিল্লি। কিন্তু তৃণমূলের প্রতিবাদের অভিমুখ হঠাৎ বদলে যায় তাপস পাল-সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়ের গ্রেফতারের পর। নোটবাতিল থেকে আন্দোলনের মুখ্য বিষয় হয়ে যায় চিটফাণ্ড-কাণ্ডে গ্রেফতারির প্রতিবাদ।

এখন আন্দোলনের আসল উদ্দেশ্য নিয়েই কর্মীদের মনে ধন্দ দেখা দিয়েছে। নোটবাতিলের সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করা হবে নাকি সিবিআই-এর অতিসক্রিয়তার বিরোধিতা— তা নিয়েই কর্মীরা সংশয়ে। তৃণমূল নেতাদের বক্তব্য এখন আন্দোলন দু’টি ইস্যুতেই চলবে। শুধু নোটবাতিলের বিরুদ্ধে আন্দোলন নয়, রাজনৈতিক প্রতিহিংসার বিরুদ্ধেও সুর চড়াতে হবে।

সল্টলেকে সিবিআই দফতরের সামনে তৃণমূলের মিছিল

সোমবার কলকাতায় রিজার্ভ ব্যাঙ্কের সামনে যখন প্রতিবাদ ধরনা চলছে, তখনই সল্টলেকে সিবিআই দফতরের সামনেও প্রতিবাদ সমাবেশ করছে তৃণমূল। সল্টলেকের সভামঞ্চে যে ব্যানার টাঙানো হয়েছিল, তাতে নোটবাতিলের উল্লেখই নেই। রয়েছে ‘মোদীর ভ্রান্ত অর্থনীতির’ কথা। দু’টি সভাতেই বক্তারা যেমন নোটবাতিলের বিরোধিতা করেছেন, তেমনই মোদী সরকারের রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কথাও উঠেছে তাঁদের কথায়। রাজ্য জুড়েই তৃণমূলের আন্দোলন চলছে দু’টি ইস্যুতে। কারণ মমতা মনে করেন, নোটবাতিলের বিরোধিতা করাতেই মোদী সরকার তৃণমূল সাংসদদের পিছনে সিবিআই লাগিয়ে তাদের গ্রেফতার করাচ্ছে। যাতে মমতা নোটবাতিলের বিরুদ্ধে আন্দোলন থেকে সরে আসেন। কিন্তু মমতা জানিয়ে দিয়েছেন, তিনি মাথা নত করবেন না। আন্দোলন থেকে তিনি সরবেন না। 

রিজার্ভ ব্যাঙ্কের সামনে তৃণমূলের বিক্ষোভ

তৃণমূলের সাধারণ কর্মীদের মনে বিভ্রান্তি ছড়িয়েছে এই নিয়ে যে, নোটবাতিল জনগণের ইস্যু। আর চিটফাণ্ড-কাণ্ডে সিবিআই গ্রেফতারি তৃণমূলের দলের ইস্যু। রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কথা বললে জনগণের দুঃখ-কষ্টের কথা তেমন ভাবে বলা যাচ্ছে না বলেই মনে করছেন সাধারণ কর্মীরা। দু’টি বিষয় গুলিয়ে গেলে সাধারণ মানুষের থেকে দূরেই সরে যাবেন তাঁরা। 

TMC Demonetisation CBI Sudip Banerjee Mamata Banerjee
Share it on
আরও যা আছে
আরও খবর
ওয়েবসাইটে আরও যা আছে
আরও খবর
আমাদের অন্যান্য প্রকাশনাগুলি -