কিছুদিন আগেই নির্বাচিত হয়েছেন বোলিং ও ব্যাটিং পরামর্শদাতা হিসেবে। তবে জাহির খান ও রাহুল দ্রাবিড়ের নিয়োগ এখন বিশ বাঁও জলে। কারণ হঠাৎ করেই কোচের নিয়োগ সিদ্ধান্ত স্থগিত করে দেওয়া হল। শনিবারই বৈঠকে বসছেন সুপ্রিমকোর্ট নিযুক্ত বোর্ডের প্রশাসকমণ্ডলীর সদস্যরা। সেখানেই দ্রাবিড়, জাহির খানদের ভবিষ্যৎ নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

ভারতীয় ক্রিকেটে বেনজির টালবাহানা চলছেই। পছন্দের সহকারী বেছে দেওয়া হয়নি বলে বোর্ডের কাছে আবদার জুড়েছেন ভারতের নতুন কোচ রবি শাস্ত্রী। শাস্ত্রীর সেই সহকারী-বায়না নিয়েই উষ্মা প্রকাশ করেছিলেন ক্রিকেটের অ্যাডভাইসরি কমিটির তিন সদস্য— সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়, সচিন তেন্ডুলকর এবং ভিভিএস লক্ষ্মণ। সুপ্রিমকোর্ট নিযুক্ত বোর্ডের প্রশাসক কমিটির কাছে রীতিমতো চিঠি পাঠিয়ে অভিযোগ করেছিলেন সৌরভরা।

ব্যাটিং ও বোলিংয়ের দায়িত্বে আসা দুই সহকারী জাহির খান ও রাহুল দ্রাবিড়কে নিয়ে আপত্তি রয়েছে রবি শাস্ত্রীর। তিনি প্রকাশ্যে দ্রাবিড়, জাহিরের অন্তর্ভুক্তিকে স্বাগত জানালেও, বোর্ডের প্রশাসনিক মহলকে নিজের পছন্দের দুই সহকারীকে নিয়োগ করার কথা জানিয়েছেন। সঞ্জয় বাঙ্গার ও ভরত অরুণকে যথাক্রমে ব্যাটিং ও বোলিং কোচের দায়িত্বে আনার জন্য রীতিমতো তদ্বির শুরু করেছেন তিনি। অবস্থা সামাল দিতে বৃহস্পতিবারেই বোর্ডের তরফে পাল্টি খেয়ে জানানো হয়েছিল, জাহির কিংবা দ্রাবিড় কোচ নন, স্বল্পকালীন মেয়াদে পরামর্শদাতার ভূমিকা পালন করবেন দু’জনে। তারপরে এদিন আবার কোচেদের নিয়োগ নিয়েই সিদ্ধান্ত স্থগিত রাখার কথা ঘোষণা করা হয়। যা নিয়ে বিভ্রান্তি চরমে।