২০১৫ সালে রেহাম খানকে বিয়ে করেছিলেন ইমরান খান। মাত্র ১০ মাস সংসার করেছিলেন প্রাক্তন ক্রিকেটারের এই প্রাক্তন স্ত্রী। এবার ইমরান খান পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পরে সেই স্ত্রীই তুললেন মহা অভিযোগ।

পাক ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক এখন দেশের অধিনায়ক। তাঁর দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) ক্ষমতায় এবং তিনি দেশের প্রধানমন্ত্রী। আর সেই সময়েই এল প্রাক্তন স্ত্রীর আক্রমণ। রেহান খান আগেই ইমরান সম্পর্কে তিনটি মারাত্মক অভিযোগ তোলেন— উভকামী, ড্রাগ অ্যাডিক্ট এবং ব্যাভিচারী। সম্প্রতি প্রকাশিত নিজের আত্মজীবনীতে এমন অভিযোগ তোলেন  রেহান।

এর পরে সম্প্রতি সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া একটি সাক্ষাৎকারে রেহান আক্রমণ শানিয়েছেন নয়া পাক প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে। লন্ডন থেকে প্রকাশিত ‘দ্য সানডে গার্ডিয়ান’কে তিনি বলেছেন— ‘‘আগে তিনি নিজেকে বদলান। তার পরে দেশকে বদলানোর চেষ্টা করবেন। নিজেকে দিয়ে শুরু করুন। নিজে সৎ হয়ে শুরু করুন।’’

ইমরানের সঙ্গে তাঁর বিবাহিত জীবন সম্পর্কে রেহাম বলেছেন, ‘‘আমি ওকে বিয়ে করেছিলাম কিন্তু ও আমাকে বিয়ে করেনি। তার কাছে গোটা বিষয়টাই ছিল উদ্দেশ্যপূর্ণ। আমাকে যে কে এই বিয়ে করার পরামর্শ দিয়েছিল কে জানে!’’

এখানেই না থেমে সাংসারিক জীবন নিয়ে ইমরানের অনেক সমালোচনাই করেছেন রেহাম। তিনি জানিয়েছেন, ওই প্রায় একটি বছর তাঁর জীবন দুঃসহ হয়ে উঠেছিল। ইমরানের সঙ্গে অন্যান্যদের সম্পর্ক নিয়েও মুখ খুলেছেন রেহাম। একই সঙ্গে তিনি বলেন, ‘‘আমার আত্মজীবনীর বিভিন্ন অংশ ‘পর্নোগ্রাফি’ হিসেবে ব্যবহার করছে ইমরানের লোকেরা। আমার বইয়ের বিভিন্ন অংশ পিডিএফ করে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়ানো হচ্ছে।’’