কেউ বিবাহিত। কেউ নন। কিন্তু তাঁদের মিল এক জায়গায়। সকলেই বিবাহিত পুরুষের সঙ্গে ডেট এবং সেক্সের মধ্যে অ্যাডভেঞ্চার খুঁজে পান।

‘ইললিসিট এনকাউন্টারস’ নামে যে সাইট রয়েছে, তাতে নাম লিখিয়েছেন প্রচুর মহিলা এবং বিবাহিত পুরুষ। এটি একটি ম্যারেড ডেটিং সাইট। এই সাইটে অনেকেই রীতিমতো বুক বাজিয়ে জানিয়েছেন তাঁদের অভিজ্ঞতার কথা।

ধরা যাক জেমা-র কথা। গত ২০ বছর ধরে পার্টনারের সঙ্গে রয়েছেন। কিন্তু গত ন’বছরে অন্তত ১০টি ‘উষ্ণ’ সম্পর্কে জড়িয়েছেন বলে স্বীকার করেছেন। এ-ও বলছেন, এই ধারা তিনি এগিয়ে নিয়ে যেতে চান।

লন্ডনের বাসিন্দা, ৩৯ বছরের জেমা-র কথায়, ‘‘লন্ডনের সেরা রেস্তোরাঁয় খেয়েছি। সেরা হোটেলে রাত কাটিয়েছি। যে সব যৌনতা নিয়ে কখনও ভাবিনি, সেই সব অভিজ্ঞতাও হয়েছে। সেন্ট্রাল লন্ডনের অন্ধকার গলিতে সেক্স করেছি।’’

কী পান এমন পরকীয়া থেকে? জেমা-র উত্তর, ‘‘কী পাই না! আমার নিজের সম্পর্কে ধারণাটাই বদলে গিয়েছে। নিজের যৌনতাকে এভাবে কখনও উপভোগ করিনি। একের পরে এক সুন্দর এবং বুদ্ধিদীপ্ত পুরুষ আসছে আমার জীবনে।’’

৩৫ বছরের জেনিফারের স্বীকারোক্তিতে রয়েছে বেদনার করুণ সুর। তিনি বলেছেন, ‘‘আমি প্রতারিত হয়েছিলাম। আমার পার্টনার আমাকে ঠকিয়েছিল। তার পরে আরও একজনের সঙ্গে আমার সম্পর্ক হয়। কিন্তু তা সত্ত্বেও আমি এই সাইটে নাম নথিভুক্ত করি। আমার জীবনে আরও একজন নতুন পুরুষ এসেছেন। তিনি বিবাহিত। কিন্তু যে সব রাত আমরা কাটিয়েছি, তা আমার কাছে সম্পদ। আমি দু’টি পৃথিবীর আনন্দই উপভোগ করছি।’’

আবার অন্য ধরনের গল্পও রয়েছে। ৬১ বছরের ক্রিস্টিন বলছেন, ‘‘আমি কখনও বিয়ে করিনি। চার পাশে যে ধরনের কথা শুনি, তাতে বিয়ে সম্পর্কে আমার মোহ বহু দিন হল কেটে গিয়েছে।’’ ক্রিস্টিনের জীবনের বেশিরভাগ সময়টাই মায়ের সেবা করতে কেটে গিয়েছে। এর পরে এই সাইটে এসে ক্রিস্টিনের সঙ্গে এমন একজনের পরিচয় হয়, যিনি ক্রিস্টিনকে ভালবাসার ঝড়ে স্রেফ উড়িয়ে নিয়ে গিয়েছিলেন।

এই সম্পর্ক টিকেছিল মাত্র একবছর। কিন্তু ক্রিস্টিন পেয়ে গিয়েছিলেন ভালবাসার সন্ধান। বিবাহিত পুরুষদের সঙ্গে ডেট করে গিয়েছেন একের পরে এক। ক্রিস্টিন বলছেন, ‘‘এই সাইটের সদস্য হয়ে আমি বিন্দুমাত্র লজ্জিত নই। আমার আত্মীয় এবং বন্ধুরা জানেন আমি কী করছি, কার সঙ্গে শুচ্ছি।’’

৪৯ বছরের ক্যারেন বিশ্বাস করেন, ‘‘বিবাহিত পুরুষদের শয্যাসঙ্গী হয়ে আমি ওঁদের বিয়ে টিকিয়ে রাখছি।’’ ক্যারেনের জীবনেরও বিচ্ছেদ এসেছে। বর্তমানে ক্যারেন একসঙ্গে চার-পাঁচজনের সঙ্গে সম্পর্ক রাখেন। রিজার্ভ বেঞ্চে ওয়েট করে থাকেন, এমন পুরুষও রয়েছে ক্যারেনের জীবনে।