ডায়াবেটিস হলেই মিষ্টির ধারেকাছে যাওয়া বন্ধ হয়ে যায়। তবে সে তো ডায়াবেটিস হওয়ার পরে। জানা যাচ্ছে, অতিরিক্ত নুন খেলে হতে পারে ডায়াবেটিস। এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের রিপোর্ট থেকে জানা গিয়েছে, সুইডেনের ইনস্টিটিউট অফ এনভায়রামেন্টাল মেডিসিন-এর গবেষকরা দাবি করেন, হাই ব্লাড প্রেশার ছাড়াও অতিরিক্ত সোডিয়াম শরীরে গেলে ডায়াবেটিস হওয়ার আশঙ্কা অনেক মাত্রা বেড়ে যায়। 

এই বিষয়ে অন্যান্য খবর

গবেষণা থেকে উঠে এসেছে, প্রতিদিন অতিরিক্ত ২.৫ গ্রাম নুন খেলে টাইপ ২ ডায়াবেটিস হওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যায়। অনেকেই আছেন, যাঁরা রান্নাতে যেমন নুন খান, সঙ্গে পাতেও নুন খান। তাঁদের ডায়াবেটিসে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা অনেক বেশি। তুলনায় যাঁরা শুধু রান্নাতেই নুন খান, তাঁদের ডায়াবেটিস হওয়ার সম্ভাবনা কম থাকে। 

যাঁরা দিনে অতিরিক্ত ৭.৩ গ্রাম নুন খান, তাঁদের ৭২ শতাংশ ডায়াবেটিস হওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যায়। 

গবেষকদের দাবি, অতিরিক্ত মাত্রায় সোডিয়াম শরীরে গেলে, প্রাপ্তবয়স্কদের মধ্যে ল্যাটেন্ট অটোইমিউন ডায়াবেটিস হওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যায়। প্যানক্রিয়াসে ইনসুলিন তৈরি করে এমন কিছু কোষ থাকে। এই ধরনের ডায়াবেটিস-এ এই কোষগুলিকে নষ্ট করে দেয়। ফলে শরীরের ইমিউন সিস্টেমও নষ্ট হয়। 

তাই এবার থেকে শুধু মিষ্টি নয়, নোনতা খাবার খাওয়ার সময়েও সচেতন থাকুন।