অনেক সময়েই সোশ্যাল মিডিয়ায় ঠাওর করা মুশকিল হয়ে পড়ে যে কোন প্রোফাইলটি আসল আর কোনটি ফেক। সবাইকেই এই নিয়ে অল্প-বিস্তর ভুগতে হয়। বহু ক্ষেত্রে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট অ্যাকসেপ্ট করে নেওয়ার পরে বোঝা যায় যে প্রোফাইলটি আসল নয়। তারকাদের ভুয়ো প্রোফাইল তৈরি হওয়ার বিষয়টি তো আর নতুন নয়। বরং তাঁদের নামের ভুয়ো প্রোফাইলই সংখ্যায় বেশি। এমন চারটি ভুয়ো প্রোফাইল নজরে এসেছে এবং সেগুলি চিহ্নিত করেছেন তারকারাই। 

এই বিষয়ে অন্যান্য খবর

নায়িকা সুদীপ্তা বন্দ্যোপাধ্যায় সম্প্রতি তাঁর প্রোফাইলে পোস্ট করেছেন যে তাঁর নাম দিয়ে একটি দ্বিতীয় প্রোফাইল খোলা হয়েছে এবং সেটি ভুয়ো। বিষয়টি সুদীপ্তার নজরে আনেন তাঁর অনুগামীরা। এবেলা ওয়েবসাইটকে সুদীপ্তা জানালেন, এটা দেখার পরেই তিনি রিপোর্ট করেছেন ফেসবুককে। 

একই সমস্যায় পড়েছিলেন টেলি-নায়িকা পায়েল দে। যে ভুয়ো প্রোফাইলটি খোলা হয়েছিল সেখানে নাম ছিল ‘চানি দে’ এবং যে ছবিটি ব্যবহার করা হয়, সেটি পায়েলের। অভিনেত্রী জানালেন যে ওঁর বন্ধুদের ও ফ্যান ক্লাবের সদস্যদের প্রথম চোখে পড়ে বিষয়টি। ওঁরাই রিপোর্ট করাতে ফেসবুক শেষ পর্যন্ত ওই প্রোফাইলটি ব্লক করে দেয়। 

টেলি-নায়ক গৌরবের নামে আবার একটি নয়, দু’টি ফেক প্রোফাইল খোলা হয়েছে। ওই দু’টি প্রোফাইলেরই স্ক্রিনশট পোস্ট করে তিনি অনুগামীদের সতর্ক করেছেন।

তবে, যাঁরা এগুলি করেন তাঁদের অধ্যবসায় তারিফ করার মতো। তারকারা তাঁদের প্রোফাইলে যা যা ছবি পোস্ট করেন, তা তৎক্ষণাৎ কপি করে নেন তাঁরা এবং পোস্ট করতে থাকেন ফেক প্রোফাইলগুলিতে। এর ফলেই বিড়ম্বনা তৈরি হয় কারণ আসল প্রোফাইলটির খোঁজ যাঁরা রাখেন না, তাঁরা ভাবেন যে এত ঘন ঘন আপডেট হয় যখন, তখন এটিও নিশ্চয়ই তারকারই নিজস্ব প্রোফাইল।