গত দেড় বছরে, ভারতে কালো টাকার কারবারিদের রুখতে সরকার যে পদক্ষেপ নিয়েছিল, তা এখনও  বজায় রয়েছে। যার ফলে, শুধুমাত্র দেশের ব্যাঙ্কগুলিতেই নয়, বড় নোটবাতিলের ফল দেখা গিয়েছিল সুইস ব্যাঙ্কেও।

এই বিষয়ে অন্যান্য খবর

২০১৬ সালের নভেম্বরে ৫০০ ও ১০০০ টাকার নোট বাতিলের কথা ঘোষণা করে মোদী সরকার। যার ফলে সুইস ব্যাঙ্কের ভারতীয় অ্যাকাউন্টগুলি হ্রাস পায় প্রায় ৪৫%। তখন সেখানে মোট ভারতীয় অর্থের পরিমাণ ছিল ৪,৫০০ কোটি টাকা।

সর্বভারতীয় এক সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদন অনুয়ায়ী, ২০১৭ সালের হিসেব তাজ্জব করে দিয়েছে গোটা বিশ্বকে। মাত্র এক বছরের মধ্যে, সেই পরিমাণ বৃদ্ধি পেয়েছে প্রায় ৫০%। বর্তমানে সেখানে রয়েছে ৬,৮৯১ কোটি টাকা। সুইস ন্যাশনাল ব্যাঙ্ক (এসএনবি)-এর তরফ থেকেই এই তথ্য দেওয়া হয়েছে বলে জানা গিয়েছে সংবাদমাধ্যমে। 

এসএনবি-র তরফ থেকে এমনও বলা হয়েছে যে, এই নিয়ে চতুর্থ বার এমন ঘটল যে, সুইস ব্যাঙ্কে ভারতীয় অর্থ বৃদ্ধি পেল—
• ২০১১ সালে বৃদ্ধি পেয়েছিল ১২ শতাংশ
• ২০১৩ সালে বৃদ্ধি পেয়েছিল ৪৩ শতাংশ
• ২০১৭ সালে বৃদ্ধি পেয়েছিল ৫০.২ শতাংশ
প্রসঙ্গত, ২০০৪ সালে সুইস ব্যাঙ্কে ভারতীয় অর্থ বৃদ্ধি পেয়েছিল প্রায় ৫৬ শতাংশ।