স্পাইডারম্যান, ব্যাটম্যান বা সুপারম্যান নন। নিতান্তই ছাপোষা চা-বিক্রেতা। আর তিনিই এই মুহূর্তে কিনা ‘সুপারহিরো’! গল্পকথা নয়, নিজের কেরামতিতেই খবরের শিরোনামে উঠে এসেছেন কেরলের পোন্নানির ‘দ্য চাপাটি ফ্যাক্টরি’ নামের রেস্তোরাঁর এই অজ্ঞাতনামা চা-বিক্রেতা।

এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে জানা যাচ্ছে, মেঘা মোহন নামের জনৈক টুইটারেত্তি এক ৪০ সেকেন্ডের ভিডিও টুইট করেন। তাতেই দেখা যায় এই আশ্চর্য কাণ্ড।

এই বিষয়ে অন্যান্য খবর

ভিডিও-য় দেখা যাচ্ছে, চার গ্লাস চা টেবিলে রাখা রয়েছে। চায়ের গ্লাসে স্পষ্ট তিনটে স্তর— চা, ক্রিম আর ফেনা। বোঝাই যাচ্ছে, চা তখনও ‘তৈরি’ নয়। এমন সময়েই তাঁর আগমন। চায়ের গ্লাস টেনে নিয়ে হাতের এক বিশেষ ঝটকায় তিনি ‘তৈরি’ করে ফেললেন চা। খেলা এই ‘ঝটকা’-র মধ্যেই নিহিত। একে একে চার কাপ চা-ই তিনি তৈরি করেন একই প্রক্রিয়ায়। একটি ফোঁটাও চলকে পড়েনি এই খেলায়। চা বানানোর এমন কেতা আগে কেউ দেখেছেন বলে মনে হয় না। 

মেঘা মোহনের সেই টুইট

মেঘা এই ভিডিও টুইট করার পরে ৮ হাজারেরও বেশি বার তা রিটুইট হয়। লাইকের সংখ্যা প্রায় ১৯ হাজার। নাম-না-জানা এই চা বিক্রেতাকে ‘টি ম্যান’ বলেই ডাকছেন সকলে। অনেকে জানাচ্ছেন, চা বানানোর জন্য তাঁকে পদ্মশ্রী দেওয়া হোক।