আমেরিকায় সব পোকেমনদের ধরে ইতিমধ্যেই গোটা বিশ্বে জনপ্রিয় হয়েছেন নিক জনসন। এবার তার পুরস্কার হিসেবে বিশ্বভ্রমণের সুযোগ পাচ্ছেন তিনি। তবে বিশ্বভ্রমণে গিয়েও অবশ্য তাঁকে পোকেমনই ধরতে হবে। হ্যাঁ, শর্ত এরকমই। 

পোকেমন গো-র অরিজিনাল ভিডিও গেমে মোট ১৫১টি মনস্টার নিয়ে তৈরি। তার মধ্যে ১৪২টি আমেরিকায় ধরা সম্ভব। ইতিমধ্যে সেই সবক’টিকে ধরেও ফেলেছেন নিক জনসন। বাদবাকি মনস্টারগুলির মধ্যে ছ’টির আপাতত কোনও খোঁজ নেই। তিনটিকে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে ধরা সম্ভব। দুটি বহুজাতিক সংস্থা নিক এবং তাঁর বান্ধবীর বিদেশ ভ্রমণের ব্যবস্থা করেছে। প্রথমে প্যারিসে গিয়ে মিস্টার মাইমকে ধরার চেষ্টা করবেন নিক। এরপরে হংকংয়ে গিয়ে ফারফেচেডকে ধরার চেষ্টা করবেন। তারপরের গন্তব্য সিডনি। সেখানে গিয়ে পোকেমন গো-তে অস্ট্রেলিয়ার ক্যাংগাসখানকে ধরতে হবে নিককে। আর সব শেষে টোকিওতে গিয়ে সেলিব্রেট করার সুযোগ পাবেন নিক এবং তাঁর বান্ধবী।

আরও পড়ুন

শুধু আপনিই নন, ‘পোকেমন গো’- এখন ‘ক্যান্ডি ক্রাশ’-এরও ধরাছোঁয়ার বাইরে

ইতিমধ্যেই নতুন চ্যালেঞ্জের জন্য মানসিক প্রস্তুতি শুরু করে দিয়েছেন নিক। কীভাবে বিদেশের মাটিতে পোকেমন গো-র চ্যালেঞ্জ জিতবেন, আপাতত সেই ছক কষছেন নিক। তবে বিদেশের মাটিতে পোকেমন গো-র চ্যালেঞ্জ জিততে গিয়ে যাতে নিক এবং তাঁর খাতির-যত্নের ত্রুটি না হয়, সেই জন্য নামজাদা হোটেলের বিলাসবহুল ঘরে তাঁদের থাকার ব্যবস্থা করা হয়েছে। ফলে পোকেমনকে ধরতে না-পারলে হাল ছাড়বেন না। কষ্ট না করলে কি এমন বিদেশ সফরের কেষ্ট পাওয়া যায়?