কোয়েসের হাত ধরে ঐতিহ্যশালী ইস্টবেঙ্গল আরও আধুনিক হয়েছে। এবার সে পথে হাঁটতে চলেছে মোহনবাগানও। ১০ বছরের চুক্তিতে মোহনবাগানের সঙ্গে যুক্ত হতে চলেছে ইনভেস্টর সংস্থা ‘স্ট্রিমকাস্ট’।

সামনেই নির্বাচন। নির্বাচনের আগেই টুটু গোষ্ঠীর চাপ বাড়ছে ক্ষমতাসীন অঞ্জনগোষ্ঠীর উপরে। ক্লাব-সচিব অঞ্জন মিত্রও অসহযোগিতার অভিযোগ আনছেন প্রায়ই। এমন অবস্থাতেই বুধবার দুপুরে সাংবাদিক সম্মেলনে বাগান সচিব ঘোষণা করে দিলেন মোহনবাগানের নয়া ইনভেস্টরের নাম। স্ট্রিমকাস্ট। যা একটি বহুজাতিক সফটওয়্যার সংস্থা।

এই বিষয়ে অন্যান্য খবর

মোহনবাগানের সঙ্গে নতুন চুক্তি অনুযায়ী, ৭৪ শতাংশ শেয়ার থাকছে সফটওয়্যার কোম্পানিটির। ১০ বছরের জন্য মোট ২০০ কোটি টাকা মোহনবাগানে বিনিয়োগ করবে স্ট্রিমকাস্ট। এর অর্থ, ক্লাবের বাজেট বার্ষিক কুড়ি কোটি টাকা। জানানো হয়েছে, ইনভেস্টর থাকলেও কো স্পনসর বাবদ আরও কিছু টাকা বাজার থেকে তুলবে মোহনবাগান। কো স্পনসরের লক্ষ্যমাত্রা রাখা হয়েছে, বার্ষিক ১৫ কোটি টাকা। জানা গিয়েছে, সবমিলিয়ে ৩৫ কোটি টাকা হাতে রেখেই দল গঠন করবে মোহনবাগান। 

মোহনবাগানের নামের কোনও পরিবর্তন হচ্ছে না। কোম্পানির নাম মোহনবাগান প্রাইভেট লিমিটেড-ই থাকছে। জানানো হয়, চলতি মাসের ১৫ তারিখেই আইএসএল-এর বিড তোলা হবে। ৯ তারিখ স্ট্রিমকাস্টের সঙ্গে এগ্রিমেন্ট সই হবে। ১৫ তারিখে মউ চুক্তিও সাক্ষরিত হবে। এমনটাও জানানো হয়। 

আজ নাম ঘোষণা হলেও নতুন সংস্থার সঙ্গে মোহনবাগানের চুক্তি ‘সেমিফাইনাল’ স্তরেই রয়েছে। শেয়ার ছাড়া নিয়ে তর্কবিতর্ক থাকলেও অঞ্জনের বক্তব্য, মোহনবাগানের স্বার্থে সবাই এগিয়ে আসবে। নির্বাচনের দামামা বেজে গিয়েছে বাগানে। এর মধ্যেই ক্লাব-সচিবের ঘোষণা নির্বাচনের আগে মোক্ষম চাল বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল।