টাকার প্রয়োজন, ঋণ চাই? তাহলে নগ্ন ছবি পাঠানা। চিনের কলেজ পড়ুয়া যুবতীদের নাকি ঋণ দেওয়ার জন্য এমন শর্তই দিচ্ছে সেদেশের ঋণের কারবারীরা।

চমকে যাচ্ছেন তো? চিনের সরকারি সংবাদপত্রে প্রকাশিত একটি প্রতিবেদনে ঠিক এমনটাই দাবি করা হয়েছে। চিনের কলেজ পড়ুয়া যেসব কিশোরী অথবা যুবতীদের অর্থের প্রয়োজন, তাঁদেরকেই এমন শর্তে ঋণ দেওয়া হচ্ছে। ঋণ পাওয়ার জন্য নগ্ন ছবির সঙ্গে সচিত্র পরিচয়পত্র পাঠাতে হচ্ছে। শর্ত অনুযায়ী, সময়মতো ঋণ শোধ করতে না পারলেই ঋণগ্রহীতা যুবতীদের নগ্ন ছবি জনসমক্ষে প্রকাশ করে দেওয়ার হুমকি দিচ্ছে ওই ঋণদাতারা।

দেনার দায়ে জর্জরিত এক যুবতী নতুন করে ঋণ নিতে চাইলে এক সংস্থার তরফে এমনই দাবি করা হয়। বিষয়টি জানতে পেরে এক সাংবাদিক অনলাইন চ্যাটে এরকমই এক ঋণদাতার সঙ্গে এক কলেজ পড়ুয়ার ছদ্মবেশে যোগাযোগ করেন এক সাংবাদিক। তাঁকেও একই শর্ত দেওয়া হয়। মূলত অনলাইন চ্যাটের মাধ্যমে আলাপ জমিয়েই এই ধরনের টোপ দেওয়া হয়। কিন্তু খবরটি সংবাদপত্রে প্রকাশিত হতেই আপাতত এই ঋণদাতার কিছুটা চুপচাপ রয়েছেন বলেই জানা যাচ্ছে।