প্রতিবন্ধকতার সঙ্গে প্রতিনিয়ত লড়াই করে যাচ্ছেন চন্ডীগড়ের বাসিন্দা গিরিশ শর্মা। মাত্র দু’বছর বয়সেই রেল দুর্ঘটনায় একটি পা বাদ চলে যায় তাঁর। কিন্তু তাঁর জেদের কাছে হারতে হয়েছে শারীরিক প্রতিবন্ধকতাকে। এক পা নিয়ে আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতার আঙিনায় নিজেকে তুলে ধরেছেন এই প্রতিভাবান ক্রীড়াবিদ।

একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, অল্প বয়সে পা হারানোর পর ব্যাডমিন্টন খেলা শুরু করেন গিরিশ। ইতিমধ্যে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক স্তরের বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় নিজের সাফল্যও তুলে ধরেছেন গিরিশ। ‘ন্যাশনাল চ্যাম্পিয়নশিপ ফর ফিজিক্যাল চ্যালেঞ্জড’ প্রতিযোগিতায় দু’বার সোনা জিতেছেন এই ক্রিড়াবিদ। পাশাপাশি দু’বার রুপো জিতেছেন ইজরায়েল ও তাইল্যান্ডের দুই প্রতিযোগিকে হারিয়ে। ২০১৫ সালে প্যারা- ব্যাডমিন্টন খেলোয়াড় হিসাবে বিশ্বে দ্বিতীয় স্থানেও জায়গা করে নেন গিরিশ। 

গিরিশ শর্মা।ছবি- ফেসবুক/গিরিশ শর্মা

শারীরিক প্রতিবন্ধকতা থাকলেও এই অবস্থায় খেলতে তাঁর কোনও রকম কষ্ট হয় না বলে জানিয়েছেন গিরিশ। তবে এই অবস্থায় খেললেও এখনও পর্যন্ত সরকারের তরফ থেকে কোনও অর্থসাহায্য পাননি তিনি। নিজের উপার্জন দিয়েই ব্যাডমিন্টন খেলা চালিয়ে যাচ্ছেন এই প্রতিভাবান তারকা।

এই বিষয়ে অন্যান্য খবর

আপাতত তাঁর লক্ষ্য আগামী দিনে দেশের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করে আরও বড় উচ্চতায় নিজেকে তুলে ধরা।