মাস কয়েক আগেই টেলিভিশনে তাঁর বউমা ইমেজ ভেঙে দিয়েছেন প্রিয়ম। আড্ডাটাইমস-এর ‘ওয়ান নাইট স্ট্যান্ড’ ওয়েবসিরিজে তাঁকে দেখা গিয়েছে একেবারেই অন্য রকম একটি চরিত্রে। শক্তিশালী এই অভিনেত্রী কখনওই নিজেকে কোনও বিশেষ তকমায় বেঁধে রাখতে চান না। চ্যালেঞ্জিং চরিত্রে অভিনয় করার তাগিদেই নিজেকে অনেকটা ভেঙেচুরে তিনি হয়ে উঠেছেন ‘ওয়ান নাইট স্ট্যান্ড’-এর ‘দেবী’। 

এই বিষয়ে অন্যান্য খবর

এবার নিলেন আরও একটি চ্যালেঞ্জ এবং শুধু তাই নয়, পাশে দাঁড়ালেন বলিউড আইকন অক্ষয়কুমারের। আগামী ৯ ফেব্রুয়ারি মুক্তি পেতে চলেছে টুইঙ্কল খন্না প্রযোজিত ও অক্ষয়কুমার অভিনীত ছবি ‘প্যাডম্যান’। বর্তমানে তামিলনাড়ুর উদ্যোগপতি অরুণাচলম মুরুগানান্থম-এর বায়োপিক এই ছবি। নিম্নবিত্ত মহিলাদের কথা ভেবে যিনি শুরু করেন স্যানিটারি ন্যাপকিন বিপ্লব। 

এই ছবির প্রচারে একটি বিশেষ উদ্যোগ নিয়েছে ‘প্যাডম্যান’ টিম। অক্ষয়কুমার ও টুইঙ্কল খন্না দেশের মানুষের কাছে ছুড়ে দিয়েছেন স্যানিটারি ন্যাপকিন চ্যালেঞ্জ। মেনস্ট্রুয়েশন নিয়ে ভারতীয় সমাজে যে রাখ-ঢাক রয়েছে, সেই সংস্কৃতিকেই চ্যালেঞ্জ করে এই উদ্যোগ। শারীরবৃত্তীয় কারণে যা স্বাভাবিক সেই নিয়ে ভারতীয় মেয়েদের সঙ্কোচ ঝেড়ে ফেলার চ্যালেঞ্জ। 

বাংলার বিনোদন জগতে প্রথম সেই চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করলেন প্রিয়ম চক্রবর্তী। ৫ ফেব্রুয়ারি তাঁর ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে তিনি পোস্ট করেন ন্যাপকিন হাতে তাঁর নিজের ছবি। সঙ্গে লেখেন ‘নেমড, ব্লেমড, টেমড বাট নেভার অ্যাশেমড’। প্রিয়মের এই পদক্ষেপ নিঃসন্দেহে অত্যন্ত প্রশংসনীয়। এই প্রসঙ্গে এবেলা ওয়েবসাইটকে তিনি জানালেন, ‘‘আমার সবচেয়ে ভাল লেগেছে এই বিষয়টা যে আমির খান, দীপিকা পাডুকোন থেকে শুরু করে অনেকেই এই চ্যালেঞ্জ নিয়েছেন, এই উদ্যোগকে সাপোর্ট করেছেন। বলিউডের এই সলিডারিটি আমার দারুণ লাগে! বাংলাতেও যদি আমরা পরস্পরের কাজকে এইভাবে সম্মান করি, তাহলে আমার মনে হয় সেটা দারুণ ব্যাপার হবে!’’