এই দেশে ক্রিকেটই প্রধান খেলা। বিরাট কোহলি-এমএস ধোনির জনপ্রিয়তায় থাবা বসানোর ক্ষমতা অনেকেরই নেই। পিভি সিন্ধু কিন্তু ইতিমধ্যেই পিছনে ফেলে দিয়েছেন ধোনিকে। কোহলির কক্ষপথের খুব কাছে পৌছে গিয়েছেন সিন্ধু। এত পর্য়ন্ত পড়ার পরে অনেকেই মনে করতে পারেন কীসের ভিত্তিতে সিন্ধুকে এতটা এগিয়ে রাখা হচ্ছে। 

দেশের প্রথম মহিলা ক্রীড়াবিদ হিসেবে সেন্ট্রাল রিজার্ভ পুলিশ ফোর্সের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর হয়েছেন। এ হেন সিন্ধু একটি স্পোর্টস কোম্পানির সঙ্গে তিন বছরের চুক্তি করেছে। চুক্তির অঙ্কটাও মাথা ঘুরিয়ে দেওয়ার মতো। সংশ্লিষ্ট সেই কোম্পানির সঙ্গে ৫০ কোটি টাকার চুক্তি সেরেছেন সিন্ধু। 

হিসেবনিকেশ করে দেখা যাচ্ছে, সিন্ধুর একদিনের এনডোর্সমেন্ট ফিস ১-১.২৫ কোটি টাকা। কোহলির একদিনের এনডোর্সমেন্ট ফি প্রায় ২ কোটি টাকা। ফলে বোঝাই যাচ্ছে, এই মুহূর্তে সব দিক থেকে বিচার করলে কোহলির পরেই সিন্ধু। পিছিয়ে পড়েছেন ধেনি। 

সদ্য সমাপ্ত বিশ্ব ব্যাডমিন্টন চ্যাম্পিয়নশিপে সিন্ধু ফাইনালে হেরে গেলেও বিশেষজ্ঞদের মন জিতে নিয়েছেন হায়দরাবাদি কন্যা।