তাঁদের সম্পর্ক বাইশ গজের বৃত্ত ছাড়িয়ে পারিবারিক ক্ষেত্রেও। ভিভিএস লক্ষ্মণ ‘ক্যাপ্টেন’ বলতে মানেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়কেই। নিজের সেরা টেস্ট একাদশে নেতা বাছলেন সৌরভকেই।

এই বিষয়ে অন্যান্য খবর

ক্রিকেট থেকে অবসর নিয়েছেন বহুদিন হল। খেলা থেকে তবু দূরে সরে যাননি । ধারাভাষ্যকারেরও কাজও করেন। এর মাঝেই বিগত আড়াই দশকের টেস্টের সেরা ভারতীয় একাদশ বেছে ফেললেন তিনি। সেই একাদশে ওপেনার হিসেবে লক্ষ্ণণ রেখেছেন বীরেন্দ্র সহবাগ ও মুরলী বিজয়কে। তিন নম্বরে দ্রাবিড় ছাড়া আর কেই বা জায়গা পেতে পারেন।

চার, পাঁচ এবং ছ’য়ে রয়েছেন যথাক্রমে সচিন তেন্ডুলকর, বিরাট কোহলি এবং সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। উইকেটকিপার হিসেবে বাছাই সেই মহেন্দ্র সিংহ ধোনি। সৌরভ, ধোনি থাকলেও নেতৃত্বের আর্মব্যান্ড পরছেন মহারাজই।

তিন পেসার হিসেবে জায়গা পেয়েছেন ভুবনেশ্বর কুমার, জাভাগল শ্রীনাথ এবং জাহির খান। একমাত্র স্পিনার হিসেবে স্থান পেয়েছেন অনিল কুম্বলে। প্রসঙ্গত, হরভজন, অশ্বিনকে ব্রাত্যই রাখা হয়েছে এই তালিকায়।

লক্ষ্ণনের বাছাই একাদশ: বীরেন্দ্র সহবাগ, মুরলী বিজয়, রাহুল দ্রাবিড়, সচিন তেন্ডুলকর, বিরাট কোহলি, সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় (অধিনায়ক), এমএস ধোনি (উইকেটরক্ষক), ভুবনেশ্বর কুমার, জাভাগাল শ্রীনাথ এবং জাহির খান।