অভিনেতা বা বিশেষ করে অভিনেত্রীরা পর্দায় কাউকে চুমু খেলে বহু দর্শকের বুক যেন ধড়াস ধড়াস করে। অথচ অনেক প্রাত্যহিক কাজের মতোই ‘চুমু’ অত্যন্ত সহজাত একটি ঘটনা। চিত্রনাট্যের প্রয়োজনে বা চরিত্রের প্রয়োজনে সহ-অভিনেতা বা অভিনেত্রীকে চুমু খাওয়া বা শারীরিক ভাবে তার ঘনিষ্ঠ হওয়া ঠিক না ভুল... তর্ক চলছেই গত কয়েক দশক ধরে। আর সেই সূত্র ধরেই বহু অভিনেতা এবং অভিনেত্রী এখনও গোটা বিষয়টাকে ট্যাবুর চোখে দেখেন। 

আড্ডাটাইমস-এর ওয়েব সিরিজ ‘ওয়ান নাইট স্ট্যান্ড’-এ প্রিয়ম চক্রবর্তী সহ-অভিনেতা সৌরভ দাসকে চুমু খেয়েছেন তো বটেই, পাশাপাশি ছিল স্মুচিং। এই সবের পরে ঠিক কী ভাবছেন তাঁর বয়ফ্রেন্ড শুভজিৎ? এবেলা ওয়েবসাইটক জানালেন অভিনেতা, ‘‘আমার খুব ভাল লেগেছে প্রিয়মের অভিনয়। এবং সিরিজের আবহসঙ্গীত। আর চরিত্রের প্রয়োজনে তো আমাকেও পর্দায় চুমু খেতে হয়েছে। ওই সময়ে ব্যক্তিগত কোনও অনুভূতি জাগেই না। স্পর্শ করলেও না। কাজেই প্রিয়মের পর্দায় চুমু খাওয়া নিয়ে কার কার অস্বস্তি রয়েছে জানি না, আমার একেবারেই নেই।’’ 

‘ওয়ান নাইট স্ট্যান্ড’-এর সাহসী দৃশ্য।

প্রিয়মের বোল্ড অভিনয়ে একদিকে যেমন বাংলা টেলিজগতের বহু অভিনেতা-অভিনেত্রী উচ্ছ্বসিত, একই সঙ্গে অনেকেই এই সিরিজটিকে ‘সফ্‌ট পর্ন’ বলে উল্লেখ করছেন। সত্যিই কি এত তাড়াতাড়ি বলে দেওয়া যায়? মাত্র একটি এপিসোড এখনও পর্যন্ত আপলোড করা হয়েছে। সিজন ওয়ানের বাকি এপিসোডগুলির স্ট্রিমিং শুরু হবে ১২ ডিসেম্বর থেকে। তাই অন্ততপক্ষে সিজন ওয়ানটি শেষ না হলে দর্শকের পক্ষে এটা বলা কঠিন যে এই ধরনের সিকোয়েন্স নিতান্তই বাণিজ্যিক কারণে নাকি চিত্রনাট্যটি স্বতঃস্ফূর্ত রাখতে? 

শুভজিৎ কর।

ওদিকে ইতিমধ্যেই ভিউ ছাড়িয়েছে দেড় লক্ষ। এই সবকিছুতে অত্যন্ত খুশি শুভজিৎ এবং অবশ্যই। এই ব্যস্ত টেলি-অভিনেতা পাশে না থাকলে, তাঁকে উৎসাহ না দিলে যে প্রিয়ম কিছুতেই এই চরিত্রটি করতেন না, সেটা আগেই জানিয়েছিলেন অভিনেত্রী। তাঁর পূর্ণ সমথর্নেই প্রিয়ম যেমন হয়ে উঠতে পেরেছেন ‘দেবী’, তেমনই প্রিয়মেরও পূর্ণ সমর্থন আছে বলেই নির্দ্বিধায় কাজ করতে পারছেন তিনি বলে জানালেন শুভজিৎ। ‘‘শুধুমাত্র কিসিং সিকোয়েন্স নয়, অভিনয় করতে গিয়ে অনেক ধরনের সিকোয়ন্সই থাকতে পারে। মরে যাওয়ার সিনও! যদি পার্টনার সেটা মেনে না নিতে পারেন, তাহলে অভিনেতার পক্ষে কাজ করা খুব কঠিন। তাই আমিও প্রিয়মকে সাপোর্ট করি এই চরিত্রের জন্য, প্রিয়মও আমাকে সাপোর্ট করে। আর তাই দু’জনেই কাজটা করতে পারি।’’