সপ্তশৄঙ্গ জয়ের পরে এবার দক্ষিণ মেরু জয় করে প্রথম বাঙালি হিসেবে অনন্য নজির গড়লেন দক্ষিণ কলকাতার ঠাকুরপুকুরের সত্যরূপ সিদ্ধান্ত। বৃহস্পতিবার ভোরে সফল ভাবে দক্ষিণ মেরু অভিযান সম্পন্ন করলেন পর্বতারোহী সত্যরূপ সিদ্ধান্ত ৷ শৃঙ্গ জয়ের খবর পেয়ে আপ্লুত তাঁর বাবা শুভময় সিদ্ধান্ত ও মা গায়ত্রী সিদ্ধান্ত-সহ গোটা পরিবার। জয়ের জন্য সোনারপুর আরোহীর পক্ষ থেকে তাঁকে আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানানো হয়েছে।

এই বিষয়ে অন্যান্য খবর

আসামরিক ক্ষেত্রে প্রথম বাঙালি হিসেবে গত ১৬ ডিসেম্বর সেভেন সামিট জয় করেন পর্বতারোহী সত্যরূপ সিদ্ধান্ত। এছাড়াও আন্টার্টিকার সর্বোচ্চশৃঙ্গ ভিসান মেসিকা জয় করেন তিনি। ঠাকুরপুকুরের ক্যানসার হাসপাতাল এলাকায় সস্ত্রীক বাবা-মা ও বড় দাদার সঙ্গে বসবাস সত্যরূপের। এর আগে ২০১৪ সালে তিনি এভারেস্ট জয় করেন। বাবা পেশায় ফিজিওথেরাপিস্ট ও মা একটি কলেজের লেকচারার ছিলেন।

 

সত্যরূপ -৫০ ডিগ্রি তাপমাত্রার পাশাপাশি ৯০ কিলোমিটার বেগে ঝড়ের মধ্যে ২৫ কেজি ওজন নিয়ে একটা ভয়ঙ্কর পরিবেশে লড়াই করেই এই জয় পেয়েছেন। তাই আত্মীয় স্বজন বন্ধুবান্ধবরা ফোন করে অভিনন্দন জানাচ্ছেন সত্যরূপকে ও তাঁর বাবা-মাকে। 
 
গত ৩০ সেপ্টেম্বর কলকাতা থেকে আন্টার্টিকায় সেভেন সামিটের জন্য পাড়ি দেন সত্যরূপ। এর পরে ১১৫ কেজি স্লেজ করে গত ১৬ ডিসেম্বর থেকে দক্ষিণ মেরুর দিকে এগোতে থাকেন তিনি। অবশেষে জয় করতে ১২ দিন সময় লাগে। 

সত্যরূপের পরিবার সূত্রে খবর, সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে ছেলের দক্ষিণ মেরু জয়ের খবর পান। ১২ দিনের সফরে চিন্তায় থাকার পরে এখন চিন্তামুক্ত সত্যরূপের পরিবার। দক্ষিণ মেরুর পরে চিলির আগ্নেয়গিরি সফর করে কলকাতায় ২১ জানুয়ারি পা রাখবেন সত্যরূপ সিদ্ধান্ত। 

২০০৫ সাল থেকে সত্যরূপ শৃঙ্গ জয়ের যাত্রা করতে শুরু করেন। ২০০১ সালে সত্যরূপ দার্জিলিঙের একটি স্কুলে প্রশিক্ষণ নেন।