রাজ্য এখনও পুরোপুরি মুক্ত নয় ডেঙ্গির হাত থেকে।  খুব সম্প্রতি ডেঙ্গিতে প্রাণ হারিয়েছেন বেশ কয়েকজন। শোনা যায়, বৃষ্টির জল পড়লে ডেঙ্গির প্রকোপ কিছুটা কমে। গত তিন-চারদিনের বৃষ্টির পর কী দাঁড়াবে বিষয়টা, এখনই বলা যাচ্ছে না।  কিন্তু শুধু ডেঙ্গিই নয়, বিপদ আসতে পারে ভাইরাল ফিভার থেকেও। ধরুন টানা সাত-আট দিন ভোগানোর পরে জ্বর কমে গেল, তবুও নিশ্চিন্ত হওয়ার কোনও কারণ নেই। এমনটাই জানাচ্ছেন কলকাতার চিকিৎসক দীপক পাল। সেই জ্বর ফিরেও আসতে পারে।

জ্বর যদি দীর্ঘদিন ধরে চলতে থাকে, সেক্ষেত্রে রক্তের প্লেটলেটস পরীক্ষা করে দেখা আবশ্যক বলে মনে করেন তিনি। প্লেটলেটস-এর মাত্রা যদি ১,৫০,০০০-এর নীচে নেমে যায়, সেক্ষেত্রে চিন্তার কারণ রয়েছে। দ্বিতীয়বার প্লেটলেটসের পরীক্ষা করা দরকার। তাতেও যদি আশাজনক ফল না পাওয়া য়ায়, সেক্ষেত্রে হাসপাতালে ভর্তির কথা ভাবতে হবে। দ্বিতীয় ক্ষেপে জ্বর ফিরে আসছে, এমন অনেক ঘটনাই সামনে এসেছে। বিশেষত চল্লিশোর্ধ্ব ব্যক্তিরাই বেশি আক্রান্ত হচ্ছেন তাতে। এর ফলে হাঁটু, কাঁধ ও পিঠে অসহ্য যন্ত্রণা অনুভূত হয়। কিছুদিন আগেই ডেঙ্গি থেকে উঠেছেন, এমন রোগীরাও আক্রান্ত হচ্ছেন এই রোগে। 

আরও পড়ুন

মারণ ডেঙ্গি থেকে কীভাবে বাঁচবেন? কোথায় পাবেন বিনামূল্যে চিকিৎসা? জেনে নিন

ঘরে ঘরে ভাইরাল ফিভার। কীভাবে বাঁচবেন? রইল চিকিৎসকের পরামর্শ

মশা-গ্রাম জীবন ও জীবাণু

তবে তেমনটা ঘটলেও ভয় পাওয়ার কোনও কারণ নেই এখনই। ঠান্ডা মাথায় আপনার চিকিৎসকের সঙ্গে পরামর্শ করুন। সাধারণ দোকান থেকে কেনা ওষুধ খেয়ে জিনিসটা ফেলে রাখবেন না। তাতে বিপদ বাড়তে পারে।