SEND FEEDBACK

English
Bengali
English
Bengali

মহুয়া-মামলায় সাময়িক স্বস্তি, তবু বাবুলকে শুনতে হল হাইকোর্টের তিরস্কার

নিজস্ব প্রতিবেদন, এবেলা.ইন | মার্চ ২০, ২০১৭
Share it on
তৃণমূল বিধায়ক মহুয়া মৈত্রর উদ্দেশে কুরুচিকর মন্তব্য নিয়ে বাবুল সুপ্রিয়র বিরুদ্ধে আলিপুর আদালত জারি করেছিল গ্রেফতারি পরোয়ানা। তাকে চ্যালেঞ্জ করেই হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন তিনি।

বিজেপির কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়র বিরুদ্ধে আলিপুর আদালতের জারি করা গ্রেফতারি পরোয়ানার উপরে ৬ সপ্তাহের অন্তর্বর্তী স্থগিতাদেশ দিল কলকাতা হাইকোর্ট। তবে একই সঙ্গে তৃণমূল বিধায়ক মহুয়া মৈত্রর উদ্দেশে বাবুলের করা মন্তব্যের সমালোচনা করলেন বিচারপতি।

একটি সংবাদ চ্যানেলের অনুষ্ঠান চলাকালীন বাবুল তৃণমূল বিধায়ককে বলেন, ‘মহুয়া তুমি কি মহুয়া খেয়ে আছো?’ এর পরেই ৪ জানুয়ারি মহুয়া আলিপুর থানায় এফআইআর দায়ের করেন। বারবার সমন পাঠানো সত্ত্বেও বাবুল থানায় হাজিরা দেননি। অবশেষে ১০ মার্চ আলিপুর আদালতে চার্জশিট পেশ করলে, আদালত বাবুলের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে। 

আরও পড়ুন:—

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়র বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি, আবার সংঘাত!

বাবুলকে মমতার পুলিশের চরমপত্র। বিপাকে বিজেপি সাংসদ

এর বিরুদ্ধেই হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন বাবুল। সোমবার বিচারপতি জয়মাল্য বাগচী এই গ্রেফতারি পরোয়ানার উপরে স্থগিতাদেশ দিলেও বাবুলের অশালীন মন্তব্যের সমালোচনা করে বলেন, রাজনীতিতে ভাষার মান নেমে যাচ্ছে। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী অটলবিহারী বাজপেয়ীর তুলনা টেনে পুরনো দিনের রাজনীতিকদের আচরণের প্রসঙ্গ উল্লেখ করেন। তিনি প্রশ্ন করেন— একজন মহিলার সঙ্গে কথা বলার কি এটাই উপযুক্ত ভঙ্গি? জনপ্রতিনিধিদের এই ধরনের মন্তব্য অত্যন্ত নিম্নমানের।

বিচারপতি বাগচী সব পক্ষকে নোটিশ দেওয়ার জন্য বাবুলের আইনজীবীকে নির্দেশ দেন। ৬ সপ্তাহ পরে এই মামলার শুনানি হবে। 

Babul Supriyo Calcutta High Court Mahua Moitra Arrest Warrant
Share it on
Community guidelines
আরও যা আছে
আরও খবর
ওয়েবসাইটে আরও যা আছে
আরও খবর
আমাদের অন্যান্য প্রকাশনাগুলি -