রাজ্য জুড়ে বিরোধী প্রার্থী-কর্মীদের মার অব্যাহত, দেখুন সেই ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদন, এবেলা.ইন | ৫ এপ্রিল, ২০১৮, ১৮:৩৫:১২ | শেষ আপডেট: ৫ এপ্রিল, ২০১৮, ১৮:৪২:১৪
২০০৭ সালে নন্দীগ্রামে ভূমি আন্দোলনকে কেন্দ্র করে রাজ্য রাজনীতিতে পরিবর্তন হয়। ২০১১ সালে রাজ্যে ক্ষমতায় আসীন হয় তৃণমূল-কংগ্রেস। বর্তমানে নন্দীগ্রামের বিধায়ক শুভেন্দু অধিকারী। পঞ্চায়েত নির্বাচনে সেই নন্দীগ্রামেই ২ নম্বর ব্লকে সব আসনেই প্রার্থী দিয়েছে বিজেপি। তবে নন্দীগ্রাম ১ নম্বর ব্লকে বিজেপি প্রার্থীরা মনোনয়ন পত্র জমা দিতে গেলে তৃণমূলের কর্মীরা মারধর করে বলে অভিযোগ। গুরুতর আহত অবস্থায় পাঁচ জন বিজেপি সমর্থককে রেয়াপাড়া ব্লক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করা হয়। অন্যদিকে কংগ্রেসের প্রাক্তন জেলাপরিষদ সদস্য আব্দুল নুমান-সহ তার দলবলের লোকেরা হরিহরপাড়ায় নমিনেশন করতে এলে তৃণমূলে কর্মীরা তাঁদেরকেও মারধর করে বলে অভিযোগ। প্রহারের প্রতিবাদে জাতীয় সড়ক অবরোধে করে সিপিএম। পুলিশি নিরাপত্তায় সুষ্ঠভাবে মনোনয়ন পত্র জমা দেওয়ার দাবিতে ১১৭ নম্বর জাতীয় সড়ক অবরোধ করেন সিপিএম সমর্থকরা। বীরভূমেও মনোনয়ন পেশ করাকে ঘিরে হিংসাত্মক হয়ে ওঠে এলাকা। চলে গুলি। মাথা ফেটে যায় সিপিএম-এর প্রাক্তন সাংসদ রামচন্দ্র ডোমের।
Community guidelines